বাংলাদেশকে অসাম্প্রদায়িক দেশ হিসেবে চিহ্নিত করার পায়তারার বিরুদ্ধে বেলজিয়াম যুবলীগের বিবৃতি
১৮ আগস্ট, ২০১৯ ০১:১৯ অপরাহ্ন


  

  • জাতীয়/ অন্যান্য:

    বাংলাদেশকে অসাম্প্রদায়িক দেশ হিসেবে চিহ্নিত করার পায়তারার বিরুদ্ধে বেলজিয়াম যুবলীগের বিবৃতি
    ২১ জুলাই, ২০১৯ ১০:১৩ পূর্বাহ্ন প্রকাশিত

    প্রবাসী ডেক্সঃ বেলজিয়াম যুবলীগের প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ খালেদ মিনহাজ প্রিয়া সাহার বক্তব্যে তীব্র পতিবাদ ও নিন্দা জানিয়ে এক বিবৃতি দিয়েছেন।

    বিবৃতিতে তিনি বলেন প্রিয়া সাহা মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের নিকট যে নালিশ করেছেন তা রাষ্ট্রদ্রোহীতার সামিল।তাই তাকে দেশে ফিরিয়ে এনে রাষ্ট্রদ্রোহী মামলায় অভিযুক্ত করে জিজ্ঞাসাবাদ করা দরকার কি কারনে,কাদের স্বার্থে আমার সোনার বাংলাকে অসাম্প্রদায়িক দেশ হিসেবে প্রতিষ্ঠা কর‍তে চায়।
    তিনি আরো বলেন,একজন মৌলবাদী মানুষ সে যে ধর্মেরই হোক না কেন তার মানসিকতা হয় সাম্প্রদায়িক। আমরা যারা অসাম্প্রদায়িকতার কথা বলি, আমরা সকল ধর্ম নির্বিশেষে অসাম্প্রদায়িকতার কথা বলি।

    প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পকে করা প্রিয়া সাহার অভিযোগের দৃশ্য দেখে আমার মনে হয়েছে তার অন্তরের অন্তস্থলে থাকা সাম্প্রদায়িকতার যে বীজ ছিল তার বহিঃপ্রকাশ ঘটেছে। সবচেয়ে দুঃখজনক হলো প্রিয়া সাহা এমন একজন মানুষের কাছে অভিযোগ করেছেন সেই ডোনাল্ড ট্রাম্প যিনি নিজেও একজন চরম বর্ণবাদী এবং সাম্প্রদায়িক রাজনীতিক হিসেবে পরিচিত।

    বাংলাদেশে যখনই সাম্প্রদায়িক আক্রমন হয়েছে, তখনই আমরা তার প্রতিবাদ করেছি। স্থানীয় পর্যায়ে বিচ্ছিন্ন ভাবে সরকার দলীয় কিছু লোকজনেরও কখনও কখনও সম্পৃক্ততা পাওয়া গেছে। কিন্তু শেখ হাসিনা সরকার কাউকেই বিন্দুমাত্র ছাড় দেননি। শেখ হাসিনা সরকারের শত্রুরাও স্বীকার করবে না যে তাঁর সরকার সাম্প্রদায়িক সম্পৃতি বিনষ্টে পৃষ্ঠপোষকতা দেয়।

    অথচ, প্রিয়া সাহা ট্রাম্পের মতো একজন সাম্প্রদায়িক মানুষের কাছেই শেখ হাসিনা সরকারের বিরুদ্ধেই অভিযোগ করলেন? একবারও চিন্তা করলেন না এর ফলে বাংলাদেশে অযথা সাম্প্রদায়িক উত্তেজনা তৈরী হতে পারে।

    ধর্মীয় মৌলবাদী অপশক্তি তো সবসময় সাম্প্রদায়িক উত্তেজনা তৈরীর চেষ্টা করেই যাচ্ছে। প্রিয়া সাহা মৌলবাদী অপশক্তি সেই সাম্প্রদায়িক উত্তেজনা তৈরীর ক্ষেত্র প্রস্তুত করে দিলেন। খুবই দুঃখজনক!

    আরও দুঃখজনক হলো প্রিয়া সাহার সমালোচনা করতে গিয়ে অনেকে হিন্দু সম্প্রদায়ের সকলেরই সমালোচনা করছেন। মনে রাখতে হবে প্রিয়া সাহা যা বলেছেন তার দায় তার নিজের, বাংলাদেশ হিন্দু সম্প্রদায়ের সকলের নয়। প্রিয়া সাহার এই বক্তব্যকে কেন্দ্র করে সাম্প্রদায়িক উস্কানি দেয়া থেকে বিরত থাকুন। না হলে মনে রাখবেন, প্রিয়া সাহা যে জঘন্য কাজ করেছে, আপনি তার থেকেও আরও জঘন্য কাজ করছেন।

    ধর্মীয় সম্প্রীতির এক উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত বাংলাদেশ। এখানে কোন ধরনের সাম্প্রদায়িক উস্কানি সহ্য করা হবে না।

    নিউজরুম ২১ জুলাই, ২০১৯ ১০:১৩ পূর্বাহ্ন প্রকাশিত হয়েছে এবং 86 বার দেখা হয়েছে।
    পাঠকের ফেসবুক মন্তব্যঃ
    জাতীয় অন্যান্য খবরসমুহ
    সর্বশেষ আপডেট
    বিশ্বকাপ ক্রিকেট

    নিউজ আর্কাইভ
    ফেসবুকে সিরাজগঞ্জ কণ্ঠঃ
    বিজ্ঞাপন
    সিরাজগঞ্জ কণ্ঠঃ ফোকাস
    • সর্বাধিক পঠিত
    • সর্বশেষ প্রকাশিত
    বিজ্ঞাপন

    ভিজিটর সংখ্যা
    11016305
    ১৮ আগস্ট, ২০১৯ ০১:১৯ অপরাহ্ন